,

শিরোনাম :
ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সকল ট্রেনের যাত্রাবিরতির দাবিতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপি আশুগঞ্জে ৩০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল জব্দ, ২ জনকে জরিমানা আশুগঞ্জে আরো ২০ গৃহহীন পরিবার পেল স্বপ্নের ঠিকানা ঠিকাদারদের সমঝোতায় অর্ধেক মূল্যে বিক্রি হচ্ছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার ঝুঁকিপূর্ণ ভবন ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মাদক মামলায় ১ জনের যাবজ্জীবন ডাস্টবিনে মিললো নবজাতকের লাশ কসবায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে বাবা-ছেলের মৃত্যু ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনা আক্রান্ত সংখ্যা ৪ হাজার ছাড়িয়েছে নাসিরনগরে কালোবাজারে বিক্রির জন্য বস্তা বদল করার সময় ভিজিডি ৪৪ বস্তা চাউল জব্দ ভারত থেকে আমদানি করা না হলে চালের দাম একশ টাকা কেজি হত : খাদ্যমন্ত্রী

এক চোরাই মোটরসাইকেলের সন্ধানে গিয়ে মিললো ১১ টি

স্টাফ রিপোর্টার : ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানা পুলিশ একটির সন্ধান করতে নিয়ে পেয়েছে ১১টি চোরাই মোটররসাইকেল। এ সময় মোটরসাইকেল চোর চক্রের নয় সদস্যকেও গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সদর থানা থেকে পাঠানো প্রেস বিজ্ঞপ্তি ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোজাম্মেল হোসেন রেজার কাছ থেকে এ তথ্য নিশ্চিত হওয়া গেছে।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলো, মো. নাছির (২৩), সুমন মিয়া (২৭), ওমর সানি (২৫), নাঈম (২০), আলমগীর চৌধুরী (৩০), মিজান মিয়া (২৮), কাউসার মিয়া (৫০), হোসেন মিয়া (৪০) ও নুরুল আমিন চৌধুরী (২৯)। তাদের সবার বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায়। এদের মধ্যে নাছির মোটরসাইকেল চোর চক্রের ‘মূল হোতা’ বলে জানিয়েছে পুলিশ।
সদর থানা পুলিশ জানিয়েছে, সম্প্রতি এক ব্যক্তি তাঁর মোটরসাইকেল চুরি হওয়ার অভিযোগ দেন থানায়। এরপর পুলিশ চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধারে কাজ শুরু করে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শনিবার থেক রবিবার ভোর পর্যন্ত সদর উপজেলার সুলতানপুর ও মাছিহাতা ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে মোটরসাইকেল চোর চক্রের হোতাসহ নয়জনকে আটক করা হয়। পাশাপশি বিভিন্ন সময় চুরি করা ১১টি মোটরসাইকেল তাদের উদ্ধার করা হয়েছে। এছাড়াও চোরাই মোটরসাইকেল কেনাবেচার নগদ দুই লাখ ৭০ হাজার টাকাও জব্দ করা হয়। চোর চক্রের মূল হোতা নাছিরের কাছ থেকেই ছয়টি চোরাই মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত মোটরসাইকেলগুলোর মধ্যে তিনটির প্রকৃত মালিককে পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলে পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়।

     এ ক্যটাগরীর আরো সংবাদ